আগামী ৪ আগস্ট অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সবচেয়ে বড় বিজ্ঞান উৎসব “ডিইউএসএস সায়েন্স ফেস্টিভ্যাল ২০১৭”। বিজ্ঞান প্রদর্শনী, প্রতিযোগিতা এবং মজার মজার সব এক্সপেরিমেন্টের মাধ্যমে বিজ্ঞানের চমকপ্রদ বিষয়গুলো তুলে ধরা হবে উৎসবে। উৎসব অনুষ্ঠিত হবে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র-শিক্ষক কেন্দ্রে (টিএসসি)। উৎসবের বিভিন্ন পর্বে অংশ নেবে স্কুল, কলেজ এবং বিশ্ববিদ্যালয় পর্যায়ের দেড় হাজারেরও বেশি শিক্ষার্থী।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় সায়েন্স সোসাইটি (ডিইউএসএস) বিজ্ঞান চর্চার প্রসার এবং একটি বিজ্ঞান মনস্ক সমাজ প্রতিষ্ঠার লক্ষ্যে প্রতিবছর নিয়মিত ভাবে আয়োজন করে আসছে এই সার্বজনীন বিজ্ঞান উৎসব। তৃতীয়বারের মত আয়োজিত উৎসবের উদ্বোধন করবেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপ-উপাচার্য (প্রশাসন)অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামান। দিনব্যাপী নানান রকম বিজ্ঞান আয়োজনতো থাকছেই, রাতেও থাকছে টেলিস্কোপের মাধ্যমে তারকারাজি দেখার সুযোগ। বিকেলের সমাপনী ও পুরষ্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে উপস্থিত থাকবেন বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি মন্ত্রী স্থপতি ইয়াফেস ওসমান, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. আ. আ. ম. স. আরেফিন সিদ্দিক ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপ-উপাচার্য (শিক্ষা) অধ্যাপক ড. নাসরীন আহমাদ। বিজ্ঞানপ্রেমীদের এই মিলনমেলায় আরো অংশ নেবেন বাংলাদেশের বিজ্ঞানমনস্ক শিক্ষক,গবেষক এবং বিজ্ঞান আন্দোলনের পুরোধা ব্যাক্তিবর্গ।

দিনব্যাপী থাকবে বিজ্ঞান বিষয়ক নানা আয়োজন

উৎসবটিতে মূলত দু’ধরণের আয়োজন থাকছে—বিজ্ঞান প্রতিযোগিতা এবং বিজ্ঞান প্রদর্শনী। প্রতিযোগিতাগুলোয় অংশ নিতে যাচ্ছে স্কুল, কলেজ, এমনকি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরাও। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের রোবটিক্স ও মেকাট্রনিক্স ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের চেয়ারপারসন ও ডিইউএসএসের মডারেটর ড. লাফিফা জামাল জানান, ‘বাংলাদেশ বিজ্ঞান শিক্ষায় দ্রুত এগিয়ে যাচ্ছে। ডিইউএসএস আমাদের দেশের শিক্ষার্থীদের একটা মঞ্চ দিতে চায়, যেখানে তারা বিজ্ঞানের বিভিন্ন মৌলিক বিষয়ে তাদের প্রতিভার স্বাক্ষর রাখবে।’ উৎসবের প্রদর্শনী সমূহ উন্মুক্ত থাকবে সকল বয়সের অংশগ্রহণকারীদের জন্য।

এ বিজ্ঞান উৎসব আয়োজনের মূল উদ্দেশ্য যে কোন বয়সের, যে কোন শ্রেণী  ও পেশার মানুষকে বিজ্ঞানের বিষ্ময়কর ও আনন্দময় জগতটির সংস্পর্শে নিয়ে আসা। তারই প্রয়াসে আয়োজনের একটি বিশেষ স্থান দখল করে থাকবে বিজ্ঞান প্রদর্শনীসমূহ। এখানে করে দেখানো হবে চিত্তাকর্ষক ও কৌতূহলোদ্দীপক সব সায়েন্টিফিক এক্সপেরিমেন্ট, যার মাধ্যমে হাতে-কলমে বিজ্ঞানের কঠিন বিষয়গুলো সহজভাবে পরখ করে দেখার সুযোগ পাবেন দর্শনার্থীরা। প্রদর্শনীতে আরও থাকবে জাতীয় বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি জাদুঘরের ভ্রাম্যমাণ জাদুঘর, টেলিস্কোপে আকাশ পর্যবেক্ষণ, রোবটিক্স প্রজেক্ট প্রদর্শনীসহ আরও নানা আয়োজন।

উৎসবে নিজেদের পছন্দের বিষয়ের প্রতিযোগিতায় অংশ নিতে পারবে শিক্ষার্থীরা। বিষয়বৈচিত্রে ভরপুর এ আয়োজনে প্রতিযোগিতার বিষয় সমূহ হলো – রিয়েল লাইফ প্রবলেম সলভিং, লাইন ফলোয়ার রোবো রেস, সায়েন্স প্রজেক্ট, ওয়াটার রকেট কম্পিটিশন, সায়েন্স নলেজ কনটেস্ট, লার্ন অ্যান্ড সলভ, বিজ্ঞান অনুপ্রাণিত ছবি আঁকা, বিহাইন্ড দা সিন, দেয়ালিকা প্রতিযোগিতা, বিজ্ঞান প্রবন্ধ, রুবিক্স কিউব প্রতিযোগিতা, অরিগ্যামি, সুডোকু কনটেস্ট এবং আকাশ পর্যবেক্ষণ। এ সকল প্রতিযোগিতায় অংশ নেবে প্রথম শ্রেণি থেকে স্নাতক পর্যায়ের সকল শিক্ষার্থীরা। উৎসবের আরো বিস্তারিত তথ্য এবং অনুষ্ঠান সূচি পাওয়া যাবে ডিইউএসএসের ওয়েবসাইটেউৎসবের নির্দিষ্ট সাইটের ঠিকানায়।

প্রতিযোগিতা ছাড়া উৎসবের অন্যান্য পর্বসমূহে যে কেউ অংশ নিতে পারবে। আর সম্পূর্ণ উৎসবটি সব বয়সের দর্শনার্থীদের জন্য থাকবে উন্মুক্ত। একঝাঁক শিক্ষার্থী, বিজ্ঞান প্রেমী এবং বিজ্ঞানমনস্ক একদল মানুষের পদচারণায় ৪ঠা আগস্ট মুখরিত হবে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্র শিক্ষক কেন্দ্র—টিএসসি, এমনটাই প্রত্যাশা আয়োজকদের।

comments

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Time limit is exhausted. Please reload the CAPTCHA.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.