কোন দুর্ঘটনায় যাদের হাত হারিয়েছে তাদের জন্য সুখবর! আপনাদের জন্য দীর্ঘ গবেষণার পরে একদল ইউরোপীয় শল্যচিকিৎসক তৈরি করেছে যান্ত্রিক হাত। সবচেয়ে অবাক করা বিষয় হল এই কৃত্তিম হাত আপনার অনুভূতি বুঝতে পারবে অর্থাৎ এটি আপনার শরীরের প্রতিস্থাপন করার পরে মোটামুটি আসল হাতের মতোই আপনাকে সাহায্য করবে, এমনটাই জানিয়েছেন গবেষকেরা।

ChloeHolmes_bionic_hand_fingers2-e1314277982703

এখন পর্যন্ত তিনজন অস্ট্রেলিয়ান নাগরিকের ওপরে পরীক্ষামূলক বায়োনিক হাত স্থাপন করা হয়। তারা সকলেই গাড়ি দুর্ঘটনায় হাত হারিয়েছেন। ২০১১ সাল থেকে ২০১৪ সাল পর্যন্ত পরিক্ষামূলক বায়োনিক হাতের ব্যবহার করা হয়।  পরিক্ষার রিপোর্টে দাবি করা হয়েছে, দুর্ঘটনার পর যুক্ত করা বায়োনিক হাত দিয়ে ওই তিনজন তাঁদের দৈনন্দিন সূক্ষ্ম সূক্ষ্ম কাজ করতে সক্ষম হয়েছেন।

এর মধ্যে উল্লেখ যোগ্য কিছু কাজ যেমন —হাতে বল নেওয়া, জগ দিয়ে পানি ঢালা, চাবি ব্যবহার, ছুরি দিয়ে খাবার কাটা, দুই হাত ব্যবহার করে বোতাম লাগানো ইত্যাদি। বায়োনিক হাত তৈরি করা হয়েছে প্লাস্টিক এবং বহু ধরনের সেন্সর ব্যবহারের মাধ্যমে। এটি যখন কোন রোগীর শরীরে লাগানো হবে তখন থেকেই কাজ করা শুরু করবে। সেন্সর গুলোর কাজ হবে মানুষের অনুভূতি পর্যবেক্ষণ করে সেই আদেশ অনুযায়ী কাজ করা।

প্রযুক্তির উদ্ভাবক মেডিকেল ইউনিভার্সিটি অব ভিয়েনার অস্কার আজমান দাবি করেন, অন্য আরেকজনার শরীর থেকে হাত নিয়ে প্রতিস্থাপন করার চেয়ে এই বায়োনিক হাত কম ঝুঁকিপূর্ণ। তবে দুর্ভাগ্য বসত বায়োনিক হাতের কোন অনুভূতি নেই। যারা কোন দুর্ঘটনায় তাদের একটি হাত হারিয়েছেন তাদের জন্য এটি বিশেষ সুফল দেবে এমনটাই দাবি উদ্ভাবকদের। তাদের সবচেয়ে বড় পাওয়া যে তাঁরা সেন্সর ভিত্তিক হাত তৈরি করে দেখিয়েছে। এবং এমন একটি হাত যেটি মানুষের ইশারায় কাজ করতে সক্ষম।

এতো এতো সুখবরের মদ্ধে একটি দুঃখজনক খবর হল এটির দাম।  নতুন এই কৃত্রিম হাতের দাম পড়বে প্রায় ১৭ হাজার মার্কিন ডলার, যার বাংলাদেশি টাকায় প্রায় ১২ লাখ ৯৪ হাজার টাকার মতো। এ ছাড়াও রোগীর অপারেশন এবং পুনর্বাসনে প্রায় একই রকম খরচ পড়বে। সব মিলিয়ে প্রায় ২৬ লক্ষ টাকার মতো প্রয়োজন পড়বে।

আরও বিস্তারিত জানতে পোস্টে দেয়া ভিডিওটি দেখতে পারেন-

 

সোর্সঃ দা গার্ডিয়ান

comments

1 COMMENT

  1. খুবই সুন্দর হয়েছে পোষ্টটি। তাছাড়া তথ্যগুলো খুবই গুরুত্বপূর্ন্য। অসংখ্য ধন্যবাদ পোষ্টটি শেয়ার করার জন্য।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Time limit is exhausted. Please reload the CAPTCHA.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.