সচরাচর আমরা যে স্মার্টফোন গুলো ব্যবহার করি এটি সেগুলোর থেকে একেবারেই আলাদা ধাঁচের একটি স্মার্টফোন। নাম সুনেই হয়তো বুঝতে পারছেন ফোনটি কেমন হতে পারে।

জি আপনাকে উরাধুরা মিউজিক এক্সপেরিন্স দেবার জন্যই এটির জন্ম। ফোনটির একেবারে সামনে আছে ২টি বিল্টইন স্পীকার যেটা দিবে বুম বুম সাউন্ড কোয়ালিটির গান সুনতে পারবেন। ফোনটির ঠিক ওপরে আছে একটি মিউজিক বাটন যেটা দিয়ে যখন তখন যেখানে সেখাএ ওয়ান টাচ ক্লিকের মাধ্যমে গান সুনতে পারবেন।

marshall-london-3_1900

ফোনটির সবথেকে আকর্ষণীয় ফিচার হচ্ছে মিউজিক শেয়ারিং টেকনোলোজি। যেটা খুবই সহজ একটি চিন্তা তবে এর আগে কেউ সেটা করে দেখায় নি। আর জেহুতু এটা মিউজিক লেভেলের ফোন তাই এতে এমন একটি ফিচার সবাই আশা করবে সেটাই স্বাভাবিক। ফোনটিতে আপনি একই সাথে ২টি হেডসেট ব্যবহার করতে পারবেন। অর্থাৎ ছবিতে যেমনটি দেখছেন ফোনটিতে দুইটি হেডসেট প্লাগিনের ব্যবস্থা আছে।

marshall-london-5_1900

সাইডের ভলিউম কি’টা সেই ওল্ড ফ্যেসেনেবল, যার দরুন ফোনটির লুক আরও সুন্দর দেখাচ্ছে। আছে বিল্টইন হাই পারফমেন্স ইকুলাইজার!

পারফমেন্স? দাম জেহুতু ৫৯০ ডলার সেহুতু পারফমেন্স নিয়ে আপনাকে চিন্তা করতে হবে না। কারন এতে ব্যবহৃত হয়েছে ২জিবি র‍্যাম, ডুয়াল কোর প্রসেসর, ৪.৭ ইঞ্চি এইচডি ডিসপ্লে, ১৬জিবি ফোন স্টোরেজ, এবং ৮ মেগাপিক্সেল ব্যাক ও ২ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরা।

অপারেটিং সিস্টেমে আছে গুগলের ললিপপ ভার্শন ৫.০.২

ফোনটি সম্পর্কে বিস্তারিত আরও জানতে যেতে পারেন তাদের অফিসিয়াল ওয়েবসাইটে!

comments

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Time limit is exhausted. Please reload the CAPTCHA.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.