মায়ানঃ এক অদ্ভূত জাতি

মায়ানরা হচ্ছে প্রাক-কলাম্বিয়ান একটি মধ্য আমেরিকান সভ্যতা। মায়ানরা অ্যাজটেকদের আক্রমণ করে তাদের স্থান দখল করে নিয়েছিল এবং যুগের পর যুগ সেখানে বসবাস করা শুরু করে দিয়েছিল। ইউকাতান পেনিনসুলা উপত্যকায় আজো কিছু মায়ান পরিবারের বসবাসের খবর পাওয়া যায়। আজ এই রহস্যময় মায়ান জাতি নিয়েই কিছু আলোচনাঃ

১) যদিও মায়ান জাতির অস্তিত্ব আর তেমনভাবে পাওয়া যায় না, তবে মেক্সিকো ও গুয়েতেমালার প্রত্যন্ত অঞ্চলে মায়ান জাতির বসবাস ও তাদের ভাষার পরিচর্যা এখনো রয়েছে।

মায়ান সংস্কৃতি
                   মায়ান সংস্কৃতি

২) গবেষকদের গবেষণায় দেখা গিয়েছে, ইউকাতান পেনিনসুলায় এখনো প্রায় ৭ লক্ষ মায়ানদের বসবাস রয়েছে।

মায়ানদের স্মারক
                    মায়ানদের স্মারক

৩) আদিম মায়ানরা মনে করত কিছু পরিচর্যা ও ধর্মীয় রীতিনীতি পালন করলে শিশুদের শরীর আরো ভালোভাবে বাড়ন্ত হয়ে উঠবে। এইজন্য তারা শিশুর মাথায় ধীরে ধীরে বোর্ড দিয়ে আঘাত করতে থাকে। তাদের ধারণা এর ফলে বাচ্চার কপাল “প্রশস্ত” হবে।

৪) বাচ্চাদের নাম রাখা হত তারা যে দিন জন্মগ্রহণ করেছে, ঐদিন অনুযায়ী।

৫) মায়ানদের চিকিৎসা পদ্ধতি ছিল খুবই উন্নত।

৬) আজো কিছু কিছু মায়ানরা বলী দিয়ে থাকে। তবে ভয় পাবার কিছু নেই। তারা মানুষ এখন আর বলী দেয় না। মুরগী বলী দেয়।

মায়ানদের বলী দেবার চিত্র
              মায়ানদের বলী দেবার চিত্র

৭) মায়ানদের সবচেয়ে বড় শহরের নাম হচ্ছে চিচেন ইতযা।

সূত্রঃ Live25facts.com

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here