ব্লগিংকে অনেকেই অনেকভাবে চিন্তা করে থাকেন কেউবা ব্লগিং কে শুধুমাত্র সময় পার করার একটা ভাল মাধ্যম হিসেবে মনে করেন, আবার কেউ নিজের পরিচিতি বর্ধনের জন্যই ব্লগে ঘুরাঘুরি করে থাকেন, অন্যদিকে অনেকের কাছেই এটি নতুন নতুন বিষয় শেখা, শেখানো, মুক্ত আলোচনা, সমস্যা সমাধানের মত একটা গুরুত্বপূর্ণ প্লাটফর্ম।

b1গত পর্বে ব্লগিং এর অন্তরালে আমরা যা করে চলেছিঃ পর্ব-১ এর মাধ্যমে পাঁচটি বিষয় তুলে ধরেছিলাম আজ আরো কিছু বিষয় তুলে ধরার চেষ্টা করেছি। হয়তবা বিষয়গুলো অনেকের কাছেই অতি সাধারণ মনে হতে পারে কিন্তু এই অতি সাধারণ বিষয়গুলির অন্তরালেই ব্লগিং অনেকের কাছেই গুরুত্বপূর্ণ হয়ে উঠেছে আর সকলের কাছে ব্লগিং এর গুরুত্ব আরো একটু বৃদ্ধি করার লক্ষেই আমার এই ক্ষুদ্র প্রচেষ্টা।

…………………………………………………………………….

সমষ্টিগতভাবে সমস্যা সমাধান করা এবং সর্বত্তম সমাধান করা

c3আমরা প্রায়ই কোন সমস্যায় পরলে ব্লগিং এর মাধ্যমে তা উপস্থাপন করে থাকি। অন্যান্য ব্লগারদের অনেকেই উক্ত সমস্যাটির উপযুক্ত সমাধান নিজেদের মত করে দেয়ার চেষ্টা করে। এক সময় সমস্যাটির সমাধান হয়ে যায়, শুধু সমাধান নয়, অনেকগুলো সমাধানের মধ্যে থেকে সর্বত্তম সমাধানটিও নির্বাচন করা সম্ভব হয়। আবার এক্ষেত্রে আরো একটি গুরুত্বপূর্ণ ব্যপার ঘটে। বলা যায় ব্লগিং এর মাধ্যমে আমাদের যে কোন সমস্যা সমাধানের জন্য আলোচনার একটা উন্মুক্ত প্লাটফর্ম তৈরি হয়, যেখানে যে কেও অংশ নিতে পারে। সমস্যাটি শুধুমাত্র এক জনের জন্য না হয়ে একটা সামগ্রিক রূপ লাভ করে। যেমন দেখতে পারেন………..

b2অভিজ্ঞতা বিনিময় করা

আমরা বৈচিত্রময় কর্মজীবনের প্রতিটা পদক্ষেপে নতুন নতুন অভিজ্ঞতার সাথে পরিচিত হয়ে, নিজেদের জ্ঞান ভান্ডারকে সমৃদ্ধ করে চলেছি। সকল অভিজ্ঞতাই যে আমাদের জন্য সুখের কারণ হবে বা ভাল কোন ব্যপার সৃষ্টি করবে তেমনটা নয়, কিন্তু এখানে গুরুত্বপূর্ণ ব্যপারটি হচ্ছে এক জনের অভিজ্ঞতা অন্য জনের সাথে বিনিময় করা। অভিজ্ঞতা ভাল বা খারাপ যে বিষয়েই হোক না কেন তা আমারা সকলের সাথে বিনিময় করলে আমরা ভাল বিষয়গুলি থেকে অনুপ্রেরণা পেতে পারি, সহজ কোন উপায় বা সম্ভাবনা পেতে পারি অবার কোন খারাপ বিষয়ে অভিজ্ঞতা থেকে আমরা শিক্ষা নিতে পারি, বিষয়টি কিভাবে এরিয়ে যাওয়া যায় বা কিভাবে সেই খারাপ মূহর্তকে মোকাবেলা করা যায়। ব্লগিং আমাদের কাছে অভিজ্ঞতা বিনিময়ের একটা অন্যতম মাধ্যম। আরো দেখতে পারেন………..

নিজের জটিল প্রক্রিয়ায় শেখা জিনিসগুলোকে অন্যকে সহজভাবে শেখার সুযোগ সৃষ্টি করাc4

আমরা বিভিন্ন বিষয়ে ব্লগ লিখে থাকি। এর মধ্যে একটা বিষয় সবচেয়ে বেশি ব্লগে উঠে আসে, আর তা হল নিজের শিক্ষা লাভের বিষয়বস্তু তা প্রাতিষ্ঠানিকভাবেই অর্জিত হোক আর নিতান্তই ব্যক্তিগত শখের বশেই অর্জিত হোক। ওয়েব দুনিয়ার বিশাল বিচরণ ভূমিতে আমরা একটু চোখ মেললেই হাতের কাছে পেয়ে যায় ওয়েব ডিজাইন, গ্রাফিক্স ডিজাইন, ইন্জিনিয়ারিং, ইনটেরিয়র ডিজাইন, কৃষি, রান্না, এমনকি হস্ত ও কুটির শিল্পের মত বিষয়গুলি শেখার মত অসংখ্য ব্লগ। যেগুলো একাকি ,বিশেষ কোন ব্যক্তি বা উৎসের সাহায্য ছাড়া নিজে নিজে শেখাটা অনেক বেশি পরিশ্রমের ব্যপার। ব্লগিং এর মাধ্যমে আমরাই এই বিষয়গুলি শেখার সহজ রাস্তা তৈরি করছি আবার আমরাই এর সুফল ভোগ করছি। একবার দেখে নেয়া যেতে পারে………..

community-cartoon

দৈনন্দিন ব্যবহার্য জিনিসের সর্বত্তম ব্যবহার নিশ্চিৎ করা

দৈনন্দিন জীবনে যে সকল সাধারণ জিনিস আমরা সবাই ব্যবহার করে থাকি এই সকল জিনিসকে দিয়েই আমরা আরো কিছু সমস্যার সহজ সমাধান করতে পারি। ব্লগারদের অনেকেই কম বেশি কিছু লজিক বা টিপস এর মাধ্যমে এই সুবিধা গুলো ভোগ করছে। অনেক সময় ব্লগিং এর মাধ্যমে ব্লগাররা বিভিন্ন বিষয়ে টিপস, কৌশল, বা পদ্ধতি আলোচনা করে থাকেন এবং সকল ক্ষেত্রেই এসব ব্যবহার করে আমরা উপকৃত হচ্ছি। আরো দেখুন………..

comments

4 কমেন্টস

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Time limit is exhausted. Please reload the CAPTCHA.