এর আগের পোস্টে কেউ একজন মন্তব্য করেছিলেন কারো পৌষ মাস কারো সর্বনাশ। এই ঘটনারই পুনরাবৃত্তি হলো যেন। টুইটারে বিন লাদেনের মৃত্যুর খবরে সর্বাধিক সংখ্যক টুইট প্রকাশের নতুন রেকর্ড গড়ার খবর পাওয়ার পরপরই জানা গেল, কেবল টুইটারই নয়, গুগলও নতুন রেকর্ড গড়েছে। বিন লাদেনের মৃত্যুতে বিশ্ববাসী সবাই গুগলে bin laden লিখে এতো বেশি সার্চ করতে থাকেন যে তা স্বাভাবিক সময়ের তুলনায় ১০০ বা ২০০ নয়, পুরো ১ মিলিয়ন শতাংশ (পার্সেন্ট) বেড়ে গেছে কেবল এক ঘণ্টায়। সাম্প্রতিক কিছু পরিসংখ্যানমূলক চিত্রে এ তথ্য দেখানো হয়েছে।

জানা গেছে, রোববার রাত ১০.৩০ থেকে ১১.৩০ (ইস্টার্ন টাইম) পর্যন্ত সার্চ জায়ান্ট গুগলে bin laden লিখে সার্চের পরিমাণ ১ মিলিয়ন শতাংশ বেড়ে যায়। টুইটারে ওবামার ভাষণ ও ওসামার মৃত্যুর খবর বিদ্যুৎগতিতে ছড়িয়ে পড়া শুরু হলেই মানুষ ঘটনার সত্যতা জানতে গুগলের উপর রীতিমতো ঝাপিয়ে পড়েন। অবশ্য সার্চের পরিমাণ বেড়ে যাওয়ার এই ঘটনা ওবামার আনুষ্ঠানিক ঘোষণার প্রায় এক ঘণ্টা আগে ঘটে বলে জানিয়েছে বিভিন্ন সংবাদমাধ্যম।

290438182

কেবল টুইটার এবং গুগলই নয়, অন্যান্য মাধ্যমও বিন লাদেনের মৃত্যুর ঘটনায় অতিরিক্ত ট্রাফিক এক্সপেরিয়েন্স করেছে বলে জানিয়েছে। এক সময়ের অন্যতম জনপ্রিয় সার্চ ইঞ্জিন ইয়াহু এক রিপোর্টে জানিয়েছে, শনিবারের তুলনায় রোববার “Osama Bin Laden” কুয়েরি ছিল ৯৮,৫৫০ শতাংশ বেশি। এছাড়াও অন্য আরেকটি রিপোর্টে জানা গেছে রোববার সারা বিশ্বেই ইন্টারনেট ট্রাফিক বেড়ে গিয়েছিল প্রায় ২৪ শতাংশ। বিশেষ করে টপ নিউজ সাইটগুলোতে ছিল সর্বোচ্চ ৪.১ মিলিয়ন পেজভিউ।

ওসামা বিন লাদেনের মৃত্যুর খবর কেউ জেনেছেন টুইটার টাইমলাইনে, কেউ ফেসবুক নিউজফিডে, কেউ ইন্টারনেট নিউজ সাইটে, কেউ টিভির সংবাদে, কেউ বা আবার পরদিনের দৈনিকে। তো আপনি কীভাবে জেনেছেন বিন লাদেনের মৃত্যুর খবর?

comments

1 COMMENT

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Time limit is exhausted. Please reload the CAPTCHA.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.