চলছে পবিত্র মাহে রমজান। আর কদিন পর ঈদ। রমজান ও ঈদ উপলক্ষ্যে খাবারের ডিজিটাল উৎসব চলছে দেশের সর্ববৃহৎ রেস্টুরেন্ট অ্যাপ লেটস ইটে। এ উপলক্ষ্যে লেটস ইটে অন্তর্ভুক্ত ঢাকার বিভিন্ন রেস্টুরেন্টে চলছে নানা ছাড়। পার্শ্ববর্তী এলাকায় অবস্থিত এসব রেস্টুরেন্টের ছাড়ের খবরসহ নানা তথ্য- ব্যবহারকারীকে জানিয়ে দেবে ‘লেটস ইট’। এছাড়া লেটস ইটের সঙ্গে চুক্তিবদ্ধ রেস্টুরেন্টগুলোর মধ্যে ৫০ টিতে মিলবে মূল্য-ছাড় সুবিধা। তবে এক্ষেত্রে আপনার মোবাইলে লেটস ইট অ্যাপ থাকতে হবে। ঈদের খাওয়া-দাওয়াকে আরো জমজমাট করতে এই অফার চলবে ৭ জুলাই পর্যন্ত।

যেসব রেস্টুরেন্ট এই ছাড় পাওয়া যাবে তার বিস্তারিত জানা যাবে লেটস ইটের ওয়েব সাইটে। সাধ্যের মধ্যে ভালো খাবার কোথায় আছে, খাবার মেন্যু, দরদাম ইত্যাদি তথ্য ঘরে বসেই জানতে স্মার্টফোনে ‘লেটস ইট’ (Let’s Eat) থাকলেই হলো। এর ইভেন্ট মেন্যুতে গেলেই কোন রেস্টুরেন্টে কত ছাড় মিলবে সেই সব তথ্য বিস্তারিত জানা যাবে।

রেস্টুরেন্ট বিষয়ক দেশের পূর্ণাঙ্গ এই মোবাইল অ্যাপ্লিকেশন শুধু ভোজন রসিকরা নয়, রেস্টুরেন্ট মালিকরাও ব্যবহার করতে পারবেন। লেটস ইটের দুটি অ্যাপ আছে যার মধ্যে একটি এন্টারপ্রাইজ যা শুধু নিবন্ধিত রেস্টুরেন্টগুলো ব্যবহার করতে পারবে। অন্যটি কনজ্যুমার অ্যাপ যা যে কেউ ব্যবহার করতে পারবে। ‘লেটস ইট’ এর এন্টারপ্রাইজ অ্যাপ ব্যবহার করে রেস্টুরেন্টের মালিক, কর্মীরা খুব সহজেই নিজের রেস্টুরেন্টের বিভিন্ন অফার, মূল্য ছাড়, মেন্যু, দাম বাড়া-কমার তথ্য নিজেই হালনাগাদ করতে পারবেন।

লেটস ইটের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা আরিফুর রহমান বলেন, ‘লেটস ইট’ ব্যবহারকারীদের বাড়তি সুবিধা দিতে আমরা রমজান উপলক্ষ্যে বিশেষ ছাড়ের ব্যবস্থা করেছি। আশাকরি আমাদের অ্যাপ ব্যবহারকারীরা এসব সুবিধা উপভোগ করবেন। যেসব রেস্টুরেন্ট আমাদের ডেটাবেজে নেই তাদের তথ্য হালনাগাদ করে গ্রাহকদের জানাতে আজই আমাদের এন্টারপ্রাইজ অ্যাপ ব্যবহার করতে পারেন।’

লেটস ইটে পাওয়া যাবে রেস্টুরেন্টের নাম, ঠিকানা, ফোন নাম্বার, মেন্যু, জিপিএস লোকেশন ও অন্যান্য তথ্যাদি। এছাড়া রেস্টুরেন্ট খোলার সময়, খাবারের মূল্য তালিকা, মান সম্পর্কে ক্রেতাদের রিভিউসহ নানা তথ্য পাওয়া যাবে। এছাড়া বিভিন্ন মৌসুমে রেস্টুরেন্টে চলে নানা মূল্য ছাড়, অফার যা জানা যাবে ‘লেটস ইট’ থেকে। লেটস ইট ব্যবহারকারীরা তাদের নিজস্ব প্রোফাইলে ফলোয়ার, খাবারের ছবি, রিভিউ ইত্যাদি সংযুক্ত করতে পারবেন। এছাড়া রেটিং অপশন থেকে ক্রেতা তার অভিজ্ঞতা জানিয়ে ভালো-মন্দ রেটিং দিতে পারবেন। ‘লেটস ইট’-এ আছে সোশ্যাল শেয়ারিং অপশন যা ব্যবহার করে বিভিন্ন সোশ্যাল মিডিয়াতেও শেয়ার করা যাবে। এছাড়া কোন রেস্টুরেন্ট কোন বিশেষ অফার দিলে স্মার্টফোনে চলে আসবে তার নোটিফিকেশন। ‘লেটস ইট’ অ্যাপ্লিকেশন ডাউনলোড লিংক:

গুগল প্লে স্টোর: http://goo.gl/ZQwhGv

অ্যাপল অ্যাপ স্টোর: https://goo.gl/zQCdV4

 

comments

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Time limit is exhausted. Please reload the CAPTCHA.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.