khan acবিশ্বজুড়ে সমাদৃত অনলাইন এডুকেশন প্ল্যাটফর্ম খান একাডেমির বাংলা সংস্করণের উন্মোচন করলো গ্রামীণফোন ও আগামী। মঙ্গলবার এক সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে খান একাডেমির বাংলা সংস্করণের উন্মোচন করা হয় (bn.khanacademy.org).

‘সবার জন্য যেকোনো স্থানে বিনামূল্যে বিশ্বমানের শিক্ষা নিশ্চিত করা’র লক্ষ্যে ২০০৬ সালে বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত উদ্যোক্তা ও শিক্ষাবিদ সালমান খান যুক্তরাষ্ট্রভিত্তিক অলাভজনক প্রতিষ্ঠান খান একাডেমি (www.khanacademy.org)  প্রতিষ্ঠা করেন। খান একাডেমি সব বয়সের সব শিক্ষার্থীর জন্য অনলাইনে বিনামূল্যে বিষয়ভিত্তিক শিক্ষার উপকরণ ও উৎসভিত্তিক সহায়তা দিয়ে আসছে। খান একাডেমিতে রয়েছে নিয়মিত চর্চার অনুশীলনী, নির্দেশনামূলক ভিডিও, ড্যাশবোর্ড বিশ্লেষণ ও শিক্ষক উপকরণ যার মাধ্যমে শিক্ষার্থীরা শ্রেণিকক্ষ ও এর বাইরে নিজেদের মতো করে অধ্যয়নের মাধ্যমে ক্ষমতায়নের সুযোগ পাবে। খান একাডেমির বাংলা সংস্করণ উন্মোচনের মাধ্যমে দেশজুড়ে শিক্ষার্থী ও শিক্ষাবিদরা খান একাডেমির সকল বিষয়বস্তু ও উপকরণ বাংলায় পড়তে পারবেন।

আগামী, গ্রামীণফোন ও খান একাডেমির যৌথ সহযোগিতার ভিত্তিতে খান একাডেমির বাংলায় রূপান্তর সম্ভব হয়েছে। এ সহযোগিতার অংশ হিসেবে গত ৮ মাসে ২ মিলিয়ন শব্দ ও ৬শ’র বেশি ভিডিও বাংলা ভাষায় রূপান্তর করা হয়েছে। খান একাডেমি রূপান্তরের এ কার্যক্রম এখনও চলছে। সামনের দিনগুলোতে খান একাডেমির বাংলা সংস্করণে আরও বেশি কন্টেন্ট ও অতিরিক্ত অনেক বিষয় যুক্ত হবে। এছাড়াও, খান একাডেমি বাংলা ওয়েবসাইটের মূল্যায়ণ ও বিস্তৃতির জন্য স্কুল পর্যায়ে একটি পরীক্ষামূলক গবেষণা চালানোর পরিকল্পনা করা হয়েছে।

খান একাডেমি বাংলা সংস্করণের উন্মোচন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ, এমপি। এ উদ্যোগ নিয়ে গ্রামীণফোনের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা রাজীব শেঠি বলেন, ‘এ মহৎ উদ্যোগের অংশ হতে পেরে গ্রামীণফোন অত্যন্ত গর্বিত। এখন, বাংলা ভাষা-ভাষী শিক্ষার্থী ও শিক্ষাবিদরা যেকোনো জায়গায় যেকোনো সময় তাদের হাতের নাগালে উচ্চ মানম্পন্ন শিক্ষা উপকরণ খুঁজে পাবে। দেশের প্রতিটি ঘরে ইন্টারনেটের সুবিধা পৌঁছে দেয়াই আমাদের ‘সবার জন্য ইন্টারনেট’ প্রচারণার লক্ষ্য।

এ উদ্যোগ নিয়ে আগামী এডুকেশন ফাউন্ডেশনের সভাপতি অধ্যাপক মসিহুজ্জামান বলেন, ‘আগামীর বাংলাদেশের সব শিশুর মানস¤পন্ন শিক্ষাগ্রহণের সমান সুযোগ নিশ্চিত করার রূপকল্প বাস্তবায়নে খান একাডেমি বাংলা একটি গুরুত্বপূর্ণ পদক্ষেপ। দেশজুড়ে শিক্ষার্থী, বাবা-মা ও শিক্ষকরা যেনো বিনামূল্যে এ অনলাইন শিক্ষা কার্যক্রমকে শিক্ষার উৎস হিসেবে সদ্ব্যবহার করতে পারে এটা নিশ্চিত করতে আমাদের কার্যক্রম ধারাবাহিকভাবে চলবে।

comments

1 COMMENT

  1. একটি ভালো খবর শেয়ার করার জন্য অসংখ্য ধন্যবাদ। খান একাডেমীর বাংলা সংস্করণ করা আরোও আগেই উচিত ছিল।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Time limit is exhausted. Please reload the CAPTCHA.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.